২১শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৬ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |
  • প্রচ্ছদ
  • টপ নিউজ >> দেশজুড়ে >> পরশুরাম
  • সরকারি প্রকল্পের অর্থ ব্যক্তিগত কাজে না লাগানো যাবে না
  • জেলা প্রশাসক

    সরকারি প্রকল্পের অর্থ ব্যক্তিগত কাজে না লাগানো যাবে না

    দৈনিক আমার ফেনী

    পরশুরাম প্রতিনিধি

    পরশুরামে স্থানীয় সম্পদ আহরণ ও বাজেট ব্যবস্থাপনা বিষয়ক ইউপি চেয়ারম্যান, সদস্য ও সচিবদের প্রশিক্ষণের সমাপনী অনুষ্ঠান হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, ফেনী জেলা প্রশাসক মোছাম্মৎ শাহীনা আক্তার।

    এসময় জেলা প্রশাসক জনপ্রতিনিধিদের উদ্দেশ্যে বলেন, সরকারি প্রকল্পের অর্থ ব্যক্তিগত রাস্তা মেরামত, পুকুর ভরাটসহ কোন কাজে লাগানো যাবে না। ইউএনওদের নির্দেশনা দেওয়া হয় প্রকল্প বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে প্রকল্পের পুর্বের ছবি ও কাজ শেষের ছবি দেখতে হবে। একই প্রকল্পের কাজ বিভিন্ন দপ্তরে দেখানো যাবে না।

    জেলা প্রশাসক ফেনী জেলার একটি ইউনিয়নের নাম উল্লেখ না করে বলেন, একটি অভিযোগ এসেছে একটি ইউনিয়নে একটি প্রকল্পে ইউএনও গিয়ে দেখেন প্রকল্পের সাইনবোর্ড রাস্তা প্রজেক্টের সবকিছু ঠিক আছে। হঠাৎ এক ব্যাক্তি মুঠোফোনে জানান, এখন ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখেন ওই প্রকল্পের ইতোপূর্বে ঝুলানো সাইনবোর্ড কিছু নেই। বাস্তবে গিয়ে দেখা গেছে আসলে ওই প্রকল্পের কোন কিছু নাই। এর কারণ হচ্ছে ওই রাস্তাটি আগেই ছিল। এটা একটা ব্যাক্তিগত কাজ ছিল। সেখানো কোন কাজই করা হয়নি। পরে ইউএনও সরেজমিন গিয়ে দেখেন সেখানে কিছুই নাই।

    জেলা প্রশাসক জনপ্রতিনিধিদের উদ্দেশ্যে বলেন, যে প্রকল্প এলাকার মানুষ উপকৃত হবে এমন প্রকল্পের নাম দেন। রাস্তার প্রকল্প দিলে সেই রাস্তা দিয়ে আপনার আত্বীয় স্বজন এলাকার মানুষ আপনার ভোটারেরা হাটবে এতে আপনার সুনাম হবে।

    দুই দিন ব্যাপী প্রশিক্ষণে উপজেলার তিনটি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, ইউপি সদস্য ও সচিবরা উপস্থিত ছিলেন।

    আরও পড়ুন

    মেধার অন্ধ অহংকারে অন্যকে অসম্মান করার অদম্য স্পৃহা থেকে বের হয়ে আসুন
    বিভ্রান্তিকর ও স্বার্থপরতার আন্দোলন!
    প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য বিকৃত করে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অপচেষ্টা
    ফেনীতে মাদকদ্রব্য অবৈধ পাচার বিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস পালিত
    মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিরা পাবে না তো রাজাকারের নাতিরা পাবে?
    মেধা-কোটা বিতর্ক
    গ্রেফতার হলেন ব্যারিস্টার সুমনকে হত্যার হুমকিদাতা
    কোটা নিয়ে হাইকোর্টের রায়ে আপিল বিভাগের স্থিতাবস্থা জারি